ঢাকা, শনিবার ২০শে অক্টোবর ২০১৮ , বাংলা - 

ব্যবসায় সম্প্রসারণের নামে চলছে প্রতারণা

ষ্টাফরিপোর্টার।।ঢাকাপ্রেস২৪.কম

মঙ্গলবার ২রা অক্টোবর ২০১৮ দুপুর ০২:৫৩:৪৮

ব্যবসায় সম্প্রসারণের নামে বোনাস শেয়ার নিয়ে শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানিগুলোর পরিচালকেরা বিনিয়োগকারীদের সঙ্গে প্রতারণা করছে। শেয়ারবাজারের স্বার্থে এই প্রতারণা বন্ধ করা উচিতবলে জানিয়েছেন ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) পরিচালক রকিবুর রহমান।

তিনি বলেন, অনেক কোম্পানির নগদ লভ্যাংশ দেওয়ার সক্ষমতা থাকলেও বোনাস দেয়। তারা এক্ষেত্রে ব্যবসায় সম্প্রসারণসহ নানা ধরনের যুক্তি দেখায়। এ নিয়ে তাদের বিশাল পরিকল্পনার কথা বলা হয়। কিন্তু বাস্তবে কিছুই না। এটি হল প্রতারণা। তাই নগদ লভ্যাংশ না দিলে, কোম্পানিকে ‘এ’ ক্যাটাগরিতে না রাখার জন্য বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) কাছে অনুরোধ করেন তিনি।

তিনি বলেন, নগদ নাই তাই বোনাস শেয়ার দেন বলে অনেক কোম্পানির পরিচালকেরা জানান। এগুলো ফেক কথাবার্তা। এক্ষেত্রে তারা বোনাস দিয়ে একটি বুঝ দিয়ে দেয়।

টানা বোনাস শেয়ার দেওয়া কোম্পানির ক্ষেত্রে বিনিয়োগকারীদের সতর্ক থাকা দরকার বলে মনে করেন রকিবুর রহমান। কেনো এসব কোম্পানি বারবার বোনাস শেয়ার দেয়? নিশ্চয় কোম্পানির কোন দূর্বলতা আছে। এসব কোম্পানি আবার একসময় তলানিতে চলে যায়। তাই সম্প্রসারণের নামে বোনাস শেয়ার দিয়ে প্রতারণা বন্ধ করতে হবে।

কোম্পানির প্রকাশিত আর্থিক হিসাব নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করেন রকিবুর রহমান। আর্থিক হিসাবে কাচাঁমাল নগদ অর্থ যে পরিমাণ দেখানো হয়, বাস্তবে তা পাওয়া যাবে না বলে মনে করেন তিনি। এগুলো শুধু কাগজে কলমে রয়েছে। যেটা অনেকটা ‘কাজীর গরু কিতাবে রয়েছে, গোয়ালে নেই’ প্রবাদের মতো।

আর্থিক হিসাবে স্বচ্ছতা আনতে ফাইন্যান্সিয়াল রিপোর্টিং অ্যাক্ট করা হলেও তার বাস্তবায়ন না হওয়ায় হতাশা প্রকাশ করেন তিনি। এক্ষেত্রে ফাইন্যান্সিয়াল রিপোর্টিং কাউন্সিলে শুধুমাত্র চেয়ারম্যান নিয়োগ দেওয়া হলেও অন্যান্য সব পদ খালি রয়েছে। যাতে আইনের প্রয়োগ এখনো শুরু হয়নি। যা শুধুমাত্র আইন করার মধ্যেই বিদ্যমান রয়েছে।

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানিগুলোতে প্রকৃত স্বতন্ত্র পরিচালক নেই বলে জানিয়েছেন রকিবুর রহমান। এক্ষেত্রে যাকেখুশি তাকে স্বতন্ত্র পরিচালক হিসাবে নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে। অথচ প্রাতিষ্ঠানিক সুশাষণ নির্দেশনায় (সিজিজি) এমনটির সুযোগ নেই। যাতে স্বতন্ত্র পরিচালক নিয়োগ দেওয়ার উদ্দেশ্য পূরণ হচ্ছে না। তবে ভারতে যথাযথ লোককে স্বতন্ত্র পরিচালক হিসাবে নিয়োগ দেওয়া হয়।

রকিবুর রহমান বলেন, বিএসইসির শেয়ারবাজারে আরও শক্ত ভূমিকা রাখতে হবে। তাদের হাতে ২সিসি এর মতো ক্ষমতা রয়েছে। যা দিয়ে অপরাধীকে শাস্তির আওতায় আনা সম্ভব।